রাস্তার ধারে চায়ের দোকানে হঠাৎই আগুন লেগে গেল গ্যাস সিলিন্ডারে! কোন রকমে বাঁচলেন যুবক! তুমুল ভাইরাল ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- ইলেকট্রিক তার যদি কোন কারণে শর্ট-সার্কিট হয়ে যায় তাহলে সেখান থেকে আ-গুন লেগে যেতে পারে । এবং এই আ-গুনের ভয়াবহতা অনেকখানি হতে পারে । এই ঘটনা প্রমাণ আমরা বহুবার পেয়েছি । বিভিন্ন জনবসতিপূর্ণ এলাকায় বিদ্যুতের তার থেকে দুর্ঘটনার কথা আমরা জেনেছি এর আগে । তবে সম্প্রতি যে ঘটনাটি দেখা গেছে সেটি ভরদুপুরে ঘটে যাওয়া একটি দুর্ঘটনা ছাড়া কিছুই নয় । গ্যাস সিলিন্ডারে আ-গুন ধ-রে যায় হঠাৎ । তারপরে?

তারপরে কি ঘটলো জানতে হলে প্রতিবেদনটি আমাকে পড়তে হবে । সভ্যতার উন্নতির ধারাকে অব্যাহত রাখতে আমরা বিভিন্ন ধরনের আধুনিক জিনিসপত্র ব্যবহার করে থাকি । যেমন আগেকার যুগে উনুন ব্যবহার করা হতো । কিন্তু উনুনে রান্না হতে সময় লাগবে অনেক বেশি। যদিও এটি অত্যন্ত নিরাপদ ছিল মানুষের পক্ষে । তার পরিবর্তে বাজারে এল গ্যাস সিলিন্ডার এবং ওভেন । এক্ষেত্রে হয়তো রান্না খুব তাড়াতাড়ি হয়ে যায় । কিন্তু ঘটে যেতে পারে যে কোনো ধরনের বি-পদ।

এমনকি জীবনে চলে যেতে পারে এই গ্যাস সিলিন্ডার থেকে । যদি কোনো কারণে গ্যাস সিলেন্ডার আগুন লেগে যায় এবং সিলিন্ডার বাস্ট করে তাহলে সেই এলাকার আশেপাশে অঞ্চলে বড় ক্ষ-তি প্র-ভাব ফেলবে সেটি আর নতুন করে বলার অপেক্ষা রাখে না । ঠিক তেমনই ঘটল এই ভিডিওতে। সম্প্রতি ইউটিউবে তার ভিডিও প্রকাশিত হয়েছে সেখানে দেখা যাচ্ছে যে রাস্তার ধারে একটি চায়ের দোকানে হঠাৎ করেই গ্যাস সিলিন্ডার এর মধ্যে আ-গুন ধ-রে যায় । খুব সম্ভবত গ্যাসের পাইপ বহু পুরনো ছিল কিংবা গ্যাসের নব সঠিক মাত্রায় লাগানো ছিল না । যার ফলে এই ঘটনাটি ঘটেছে ।

ভিডিওটা দেখলে আপনি বুঝতে পারবেন যে এক ব্যক্তি দোকানে দাঁড়িয়ে চা করছিলেন কিন্তু হঠাৎ করেই তার পাশে থাকা গ্যাস সিলিন্ডারে আ-গুন ধরে যায় এবং যত সময় যেটা শুরু করতে থাকে আগুনের তীব্রতা । আশেপাশে এলাকাবাসী ভী-ত স-ন্ত্রস্ত হয়ে পড়ে । কারণ যদি কোনো কারণে গ্যাস সিলিন্ডার বাস্ট করে যায় তাহলে গোটা এলাকার তছনছ হয়ে যাবে । আশেপাশে থাকা যুবক রাস্তা দিয়ে সেই আ-গুন নেভাবার চেষ্টা করে ।প্রথমদিকে আগুন আয়ত্তে না এলে কিছুক্ষণ পর অবশ্য সে আ-গুন নি-ভে যায়। কিন্তু এই ধরনের ঘটনা থেকে আমাদের শিক্ষা এবং আগামী দিনে যাতে এই ধরনের ঘটনা ঘটে সে ব্যাপারে নজর রাখা দরকার।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button