মাত্র 10,000 টাকা পুঁজিতেই শুরু করতে পারবেন এই 25 টি ব্যবসা! রইল বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- যারা চাকরির জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে তারা হয়তো একসময় চাকরি পেয়ে যাবে। কিন্তু যাদের চাকরি করার কোনো ইচ্ছে নেই বা পরিস্থিতি নেই তাদের ক্ষেত্রে কি হয় । তারা কি টাকা পয়সা উপার্জন করবে না ? অবশ্যই করবে। কারন এখনকার যুগে চাকরির পাশাপাশি ব্যবসা যে মনোনিবেশ করছ অনেকে । ব্যবসা বাণিজ্যেমানেইঞ্জে মোটা অংকের টাকা বা ক্ষতির পরিমাণ বেশি মনটা কিন্তু নয় । কম টাকাতে লাভজনক ব্যবসা অনেকগু-লি রয়েছে । আপনি হয়তো এই মুহূর্তে বুঝতে পারছেন না যে কি ব্যবসা শুরু করা যেতে পারে । তাই আজকের এই প্রতিবেদনটি আপনার জন্য । আজকের প্রতিবেদন আপনাদের সামনে তুলে ধরবে এমন বেশ কয়েকটি ছোটখাটো ব্যবসার নাম যেগুলো খুব সহজে আপনি অল্প টাকা দিয়ে শুরু করতে পারেন ।

খাবারের হোম ডেলিভারি:- বর্তমানের এই পরিস্থিতি দাঁড়িয়ে বাইরে বেরিয়ে কেউ খাবার খেতে যাচ্ছে না । যার ফলে রেস্তোরাঁগুলি রীতিমতো বন্ধ এর মুখে । এবং এই সুযোগে আপনি ব্যবহার করতে পারেন । আপনি বাড়িতে খাবারের একটি দোকান খুলতে পারেন অনলাইনের মাধ্যমে । এবং সেটি ফেসবুক বা অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে প্রচার করতে পারেন । তারপর যারা যারা অর্ডার দেবে তাদের বাড়িতে গিয়ে সেই খাবার পৌঁছে দিয়ে আসতে পারেন ।।অল্প সময়ে অধিক লাভজনক ব্যবসা এটি ।

অনলাইন বেকারি: রকমারি কেক, কুকিস্ বানাতে ভালবাসেন? আত্মীয়-বন্ধুদের জন্মদিন-অ্যানিভারসারিতে আপনার বানানো কেকের কদর রয়েছে? তাহলে এই ছোট ব্যবসা আপনার জন্য। ওভেন-ফ্রেশ বেকারি আইটেমের চাহিদা প্রচুর, আর তা যদি আপনি একেবারে ক্রেতার ঘরে পৌঁছে দিতে পারেন তাহলে তো কথাই নেই। নিত্যনতুন রেসিপি চেষ্টা করুন, তৈরি করুন আপনার স্পেসালিটি। ১০ হাজার টাকায় শুরু করুন আপনার ব্যবসা। ঘরের ওভেনেই কেক-কুকিস্ বানিয়ে অনলাইনে বিক্রি করুন ।

কাস্টমাইজড গয়না তৈরি: নতুন ধরণের গয়না তৈরি করুন, অভিনবত্ব আনুন গয়নার ডিজাইন, স্টাইল আর উপকরণে। অনলাইনে ব্যবসা করুন। ১০ হাজার টাকায় এই ব্যবসা শুরু করতে পারবেন। এই ধরণের গয়না তৈরির উপকরণ সহজেই পাওয়া যায় কলকাতার বিভিন্ন বাজারে। পছন্দ মতো উপকরণ সংগ্রহ করে বাড়িতে বসে সহজেই বানিয়ে ফেলুন গয়না।

ইউটিউব চ্যানেল: অনলাইনে আয় করার আরও একটি সহজ উপায় ইউটিউব চ্যানেল। শিক্ষামূলক থেকে রান্না শেখানো, লাইফ হ্যাকস্ থেকে বেড়ানো, বিষয় হতে পারে যে কোনও। চ্যানেলের ফলোয়ার বাড়াতে নিয়মিত ভিডিও আপলোড করতে হবে। স্মার্টফোনে ভিডিও তুলেও আপলোড করতে পারেন চ্যানেলে। তবে শব্দ ও ছবির গুণমান ভাল হওয়া জরুরি। ভিডিওর যথেষ্ট ভিয়্যু হলে বিজ্ঞাপন বাবদ টাকা পাবেন।

লকডাউন এর আগে আমরা দেখেছিলাম যে শিক্ষাগত বিষয়ে অনেকেই যুক্ত রয়েছেন । অর্থাৎ ছাত্র ছাত্রীরা পড়াশোনা করার পাশাপাশি বাড়িতে গিয়ে পোড়ানোর কাজ করতো । কিন্তু এই দীর্ঘ লকডাউন সেটা বন্ধ করে দিয়েছে । তবে হতাশ হওয়ার কোনো কারণ নেই । আপনি চাইলে অনলাইনে মাধ্যমে কিন্তু টিউশন পড়াতে পারেন ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button