লক্ষীর ভান্ডারের ফর্ম ফিলাপ করেছেন অথচ SMS আসেনি? জেনে নিন কি করবেন!

নিজস্ব প্রতিবেদন:মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্বপ্নের প্রকল্প হল লক্ষীর ভান্ডার। একুশের বিধানসভা নির্বাচনে জয় লাভ করার পর রাজ্যের মহিলাদের উদ্দেশ্যে এই প্রকল্প চালু করেছিলেন তিনি।এই প্রকল্পের মাধ্যমে সাধারণ এবং তপশিলি জাতি ও উপজাতির মহিলাদের 500 থেকে 1000 টাকা পর্যন্ত দেওয়া হয়।

রাজ্যজুড়ে ইতিমধ্যেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই প্রকল্প ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। গত 2021 সালের আগস্ট মাসে এই প্রকল্পের জন্য সর্বপ্রথম ফর্ম ফিলাপ করা শুরু হয়। এরপর রাজ্যের বহু মহিলাই এই প্রকল্পের টাকার সুবিধা পেয়েছেন।তবে ইদানিং এই প্রকল্পের ক্ষেত্রে একটি সমস্যা দেখা যাচ্ছে। অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যাচ্ছে ফর্ম পূরণ করার প্রায় পনেরো থেকে কুড়ি দিনের মধ্যে ফোনে কোন রকমের এসএমএস আসেনি।

প্রথমেই জানিয়ে রাখি এই এসএমএস না আসার পেছনে বেশ কিছু কারণ রয়েছে।যদি কোন কারণে আপনার স্বাস্থ্য সাথী কার্ড এর নম্বর ভুল থাকে কিংবা অন্যকোন নথিতে ভুল থাকে সে ক্ষেত্রে এসএমএস আসতে দেরি হতে পারে। এই ক্ষেত্রে জানিয়ে রাখি অবশ্যই একটু অপেক্ষা করতে হবে। কারণ বর্তমানে করোনা সংক্রমনের বাড়বাড়ন্তের কারনে দুয়ারের সরকার ক্যাম্প বন্ধ রয়েছে। তাই এই মুহূর্তে এই ক্যাম্পের থেকে কোন রকম সুবিধা পাওয়া সম্ভব নয়।

তবে এই ক্ষেত্রে আপনার বেশ কয়েকটি বিষয় করণীয় রয়েছে।যদি আপনি পঞ্চায়েত এলাকায় বসবাস করে থাকেন সেক্ষেত্রে নির্দিষ্ট পঞ্চায়েত অফিসের আধিকারিকের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেন।এছাড়াও বিডিও অফিসের সমস্ত নথি পত্র নিয়ে গিয়ে দেখিয়ে জিজ্ঞেস করতে পারেন কেন এসএমএস আসেনি।

শহরাঞ্চলে বসবাস করে থাকলে পুরসভায় গিয়ে আপনাকে এই বিষয় নিয়ে যোগাযোগ করতে হবে। বর্তমানে লক্ষীর ভান্ডার প্রকল্পের বেশিরভাগ কাজ অফলাইনের মাধ্যমে করা হচ্ছে। যদি আপনি বিশেষ কোনো সাহায্য পেয়ে না থাকেন সে ক্ষেত্রে আপনার মোবাইলে দুয়ারে সরকার লিখে সরকারি ওয়েবসাইটে ঢুকে নিজের সমস্যার কথা জানাতে পারেন।।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button