গ্রামের বাড়িতে গিয়ে কাজের মেয়ের কোলে ছাদে ঘুরছে ইউভান, তু-মুল ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- কখনো বাবার সাথে কখনো আবার মায়ের সাথে বাইরের অচেনা পরিবেশকে চিনতে মাঝেমধ্যেই বেরিয়ে পড়ছে ছোট্ট নবাব পুত্র ইউভান । কখনো আবার জানলার কাছে ধা-ক্কা মে-রে বাড়ির লোককে এমনটা বোঝাবো যে এই বাড়ীতে আর তা ভালো লাগছে না । সে বাইরে বেরোতে চাই এবং প্রকৃতির সাথে আলাপ পরিচয় করতে চাই। মাঝেমধ্যে তারে ইচ্ছে কে প্রশ্রয় দিচ্ছে তার বাবা এবং তার মা । অর্থাৎ রাজ চক্রবর্তী এবং শুভশ্রী গাঙ্গুলী তার একটি চিত্র দেখা গেল এই ভিডিওর মাধ্যমে।

সম্প্রতি বেশ কিছুদিন আগে রাজ চক্রবর্তী বিধায়ক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন । তাই মাথায় এখন তার প্রচন্ড পরিমানে কাজের চাপ ইতিমধ্যে ক-রোনা কে হার মানিয়ে বাড়ি ফিরেছে শুভশ্রী গাঙ্গুলী। দীর্ঘ ১৭ দিন পর নিজের সন্তানকে কাছে পেয়েছেন তিনি । তাই খুশিতে আনন্দে বাঁ-ধ ভে-ঙেছে এমনটা নতুন করে বলার অপেক্ষা রাখে না । তাই প্রতিদিনই তার ছেলেকে নিয়ে কে-টে যায় অজান্তেই সময় । বাবার কাঁধে ছেলে ঘুরতে দেখা গেলো ইউভান কে ।

আমরা এর আগে দেখেছিলাম শুভশ্রী গাঙ্গুলী যখন ক-রোনা আ-ক্রান্ত ছিলেন তখন রাজ চক্রবর্তীর সাথে তার ছেলে বাইরে ঘুরতে গিয়েছিল । তার দৃশ্য আমরা দেখেছিলাম সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে । মায়ের সাথে বাইরে ঘুরতে গিয়েছিলেন নবাব পুত্র । তবে সমস্ত কাজ ফেলে আপাতত ছুটির মে-জাজে রয়েছে রাজ-শুভশ্রী এবং তাদের ছেলে । তাই হালিশহরের বাড়িতে তারা একসাথে সময় কাটাচ্ছেন এখন এবং সেখান থেকেই ঈদের শুভেচ্ছা বার্তা জানিয়েছিলেন তার ছোট্ট ছেলে ইউভান ।

সেই ভিডিওতে আমরা দেখেছিলাম যে বাবার কাঁধে চেপে অর্থাৎ রাজ চক্রবর্তীর কাঁধে চেপে গোটা হালিশহরের পরিবেশকে উপভোগ করছে ছোট্ট ইউভান । কিন্তু এবার অন্য চিত্র দেখা গেল । সম্প্রতি যে ভিডিওটি শেয়ার করেছেন রাজ চক্রবর্তী সেখানে দেখা যাচ্ছে যে হালিশহরের বাড়িতে যে পরিচালিকা রয়েছে অর্থাৎ যে কাজের মেয়ে রয়েছে তার কোলে আনন্দ করছে ছোট্ট ইউভান । বিকেলে ছাদের মধ্যে তার কোলে গোটা হালিশহর দেখার চেষ্টা করছে ছোট্ট ছেলে ইউভান । ইতিমধ্যে অনেকেই প্রশ্ন করছেন যে কাজের মেয়ের কোলে কি করছে তার ছেলে । যদিও তার কোনো উত্তর পাওয়া যায়নি রাজ চক্রবর্তীর পক্ষ থেকে । ইতিমধ্যে ভিডিওটি তার অনুগামী মহলে জনপ্রিয়তা পেয়েছে ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button