দারুন দক্ষতার সঙ্গে সঞ্চালনা করে কিছুদিনের মধ্যেই দর্শকদের মন জয় করেছেন অঙ্কুশ! কাজ হারাতে পারেন কাঞ্চন মল্লিক! তুমুল ভাইরাল ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- রীতিমতো চিন্তায় পড়ে গেছে এবার কাঞ্চন মল্লিক । কাজ হারাতে পারেন তিনি । এমনটা অনুমান করছেন অনেকে । কারণ আমরা জানি যে এই মুহূর্তে ডান্স বাংলা ডান্স সিজন ১১ রিয়েলিটি শোয়ের সঞ্চালনার দায়িত্ব রয়েছে অঙ্কুশ হাজরা এবং বিক্রম চট্টোপাধ্যায় এর উপর । তারা এত সুন্দর ভাবে নিখুঁতভাবে সঞ্চালনা করছেন যে দর্শকদের মনে গভীর একটা জায়গা করে নিয়েছে । তার পাশাপাশি একটা প্রশ্ন আছে অভিনেতা থেকে সঞ্চালক উত্থান ঘটেছে নাকি পতন ঘটেছে ? তবে অধিকাংশ দর্শকদের মধ্যে আলাদা কিছু ।

অঙ্কুশ হাজরার সঞ্চালনার দক্ষতা দেখে রীতিমতো মন্ত্রমুগ্ধ দর্শকরা আর তেমনটা বলতেই পারেন যে সঞ্চালনের জন্য একদম উপযুক্ত মানুষকে খুঁজে পেয়েছে তারা তাহলে কি যারা আগে সঞ্চালনা গুরুত্ব বুঝিয়েছিল অর্থাৎ বিশ্বনাথ বসু এবং কাঞ্চন মল্লিক তারা কি কাজ হারাতে চলেছে । এমনটা মনে করছে যদিও বিক্রম চট্টোপাধ্যায় । তিনি মনে করছেন যে অঙ্কুশের সঞ্চালনা দেখে রীতিমতো কাজ হারাবার আশঙ্কা থাকতে পারে কাঞ্চন মল্লিকের ।কারণ কাঞ্চন মল্লিক নিজে ফোন করে অঙ্কুশ হাজরা কে সংবর্ধনা দিয়েছে এত ভালো কাজ করার জন্য। ।

অপরদিকে অঙ্কুশ হাজরা মনে করেন যে সঞ্চালনা একটা বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব । রিয়েলিটি শোয়ের দেড় ঘন্টা দর্শকদের সাথে মনোরঞ্জন করার জন্য রীতিমতো বেশ চ্যালেঞ্জিং তার পক্ষে । তার অনুভূতিগুলো দর্শকদের অনুভূতির সাথে মিশে যায়। তাই সেটাকে আরও বাড়িয়ে তুলতে মরিয়া তিনি তিনি মনে করেন যে একটি শো এর টিআরপির নির্ভর করে সঞ্চালনের উপর । তাই সেটা মন দিয়ে করা উচিত । এই লকডাউন এর ফলে প্রেক্ষাগৃহটি বন্ধ । অটিতি প্ল্যাটফর্ম গুলি হল দর্শকদের একমাত্র ভরসা । তাই এই প্লাটফর্মের এর জনপ্রিয়তা ধরে রাখতেই হবে আমাকে। । চেষ্টা করে যেতেই হবে।

তিনি শাহরুখ খান -কে দেখে অনেক কিছুই শিখেছেন অঙ্কুশ। শাহরুখের সীমাহীন বিনোদন অঙ্কুশকেও অনুপ্রাণিত করেছে। শাহরুখকে তিনি দেখেছেন সঞ্চালকের ভূমিকায় মেয়েদের পোশাক পরে আসতে, কখনও বা ফেস মাস্ক লাগিয়ে আসতে অথবা খালি গায়ে তোয়ালে পরে নাচতে। ফলে অঙ্কুশও বুঝেছেন নায়ক যখন সঞ্চালনা করেন তখন তাঁকে নায়কের ইমেজ নিয়ে ভাবলে হবে না। মনপ্রাণ দিয়ে সঞ্চালনা করতে হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button