বড় ঘোষণা- ৩০ জুন থেকে চালু হচ্ছে ১০ লাখের স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- তৃতীয়বারের জন্য বিপুল সংখ্যক মানুষের ভালোবাসা পেয়ে ক্ষ-মতায় এসেছে তৃণমূল কংগ্রেস এবং পুনরায় মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন মমতা ব্যানার্জি । আমরা ভোটের আগে দেখেছিলাম ইশতেহার প্রকাশের সময় মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি একাধিক প্রকল্পের ঘোষণা করেছিলেন । যেগু-লি ভোটে জেতার পর কার্যকরী হবে বলে জানিয়েছিলেন । সে অর্থে মানুষ তাদের ওপর আস্থা রেখে কিছুটা হলেও বিশ্বাস এবং ভরসা রেখে ভোটদান পর্বের মাধ্যমে পুনরায় ক্ষ-মতায় নিয়ে এসেছেন । কিন্তু সবার মনে একটা প্রশ্ন ছিল যে সমস্ত প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সেগুলো কি আদৌ পূরণ করবেন ?

তবে একথা আমি আপনি সকলে জানি যে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যে সমস্ত প্রতিশ্রুতি দিয়ে থাকেন সেগু-লি কমবেশি প্রতিটি পূরণ করার চেষ্টা করে থাকেন । ঠিক তেমনই ঘটনা ঘটতে দেখা গেলো এবার । ইশতেহার প্রকাশের সময় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছিলেন যে স্টুডেন্টদের জন্য ১০ লক্ষ টাকা দেবে রাজ্য সরকার । ভোটে জেতার পর আগামীকাল সেই ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং আগামী ৩০ জুন অফিশিয়ালি ভাবে লঞ্চ করা হবে এটি । এমনটা জানিয়েছেন সাংবাদিক বৈঠকে নবান্ন থেকে।

আমাদের মধ্যে এরকম অনেকে আছেন যারা পড়াশোনা করতে অত্যন্ত ভালোবাসেন । কিন্তু টাকা পয়সার অভাবে বা আর্থিক স-মস্যার কারণে তারা পড়াশোনা চালিয়ে যেতে পারে না ।যার ফলে মাঝপথে ছেড়ে দিতে হয় পড়াশোনাকে । থমকে যায় তাদের স্বপ্ন । এবার সেই স্বপ্ন পূরণের দায়িত্ব নিল রাজ্য সরকার । এই জন্যই এই পশ্চিমবঙ্গ গোটা ভারতবর্ষে অন্যান্য রাজ্যের থেকে যথেষ্ট আলাদা । নবান্ন থেকে সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করলেন স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন যে রাজ্যের ছাত্রছাত্রীরা এই রাজ্যের সম্পদ ও গর্ব । কোন কারণে যাতে তাদের পড়াশোনার থমকে না যায় তার জন্য এই প্রচেষ্টা রাজ্য সরকারের তরফ থেকে । এর জন্য আলাদা কোনো গ্যারান্টার লাগবেনা । রাজ্য সরকার নিজেই এই লোনের গ্যারান্টার হিসেবে কাজ করবে । স্নাতক স্নাতকোত্তর পেশাদারী ডক্টরেট পোস্ট ডক্টরেট ইত্যাদির জন্য কার্যকর হবে এই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড । এবং চাকরি পাবার পর সফট লোনের মাধ্যমে ১৫ বছরের মধ্যে আপনি এই টাকা ফেরত দিতে পারবেন । এই প্রকল্প ঘোষণা হওয়ার পর থেকে এক আনন্দের উ-চ্ছ্বাস ধরা দিয়েছে প্রতিটি ছাত্র ছাত্রী এবং পড়ুয়াদের মধ্যে । তার পাশাপাশি আরও একবার মানুষ আশা-ভরসা এবং বিশ্বাস রাখতে চলেছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপর ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button