৩০ বছরের পরে নারীরা সবচেয়ে যে ৭টি ভু’ল বেশি করে, নারীদের শরীরে যে সাত পরিবর্তন ঘটে, জানা উচিত সকলের!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- আমাদের বয়স যত বাড়তে থাকে ততই প্রতিনিয়ত পাল্টাতে থাকে আমাদের চাহিদা এবং বয়সের তুলনায় যে চাহিদা সৃষ্টি হয় আমাদের মধ্যে সেই চা-হিদার ব-শবর্তী হয়ে কখনো কখনো আমরা জীবনের সেরা কিছু ভুল কাজ করে ফেলি । যার ফলে হয়তো যখন আমরা শেষ বয়সে এসে উপস্থিত হয় তখন সেই সমস্ত ভুল সম্পর্কে আমরা ধারণা করতে পারি । কিন্তু তখন করার কিছুই থাকে না । বয়স বাড়ার সাথে সাথে অর্থাৎ কুড়ি থেকে ত্রিশ বছরের মধ্যবর্তী সময়ে যে ভুলগুলো আপনার দ্বারা হতে পারে সেই ভুলগু-লি আজকালের প্রতিবেদন আপনাদেরকে জানাবো ।

তার সাথে সাথে জানাবো যে কোন রকম ভাবে যাতে সেই ভুলগু-লি আপনি না করেন । বিভিন্ন গবেষণায় উঠে এসেছে যে তথ্য সেখান থেকে কিছু প্রশ্ন বাছাই করা হয়েছে এবং সেই প্রশ্ন মধ্যে একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন ছিল যে ত্রিশের গণ্ডি পার হলেই কী কী ভুল করে মানুষেরা । তার উত্তর দিতে আজকের এই প্রতিবেদন । যদিও অনেকেই অনেক ধরনের মন্তব্য জারি করেছিল । কিন্তু সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ যে সমস্ত উত্তর সেগু-লি নিয়ে আলোচনা করা হবে

১) উচ্চাকাঙ্ক্ষা ত্যাগ না করা :- আমাদের মধ্যে অনেকেই আছেন যারা কুড়ি বছর পেরিয়ে যাওয়া মাত্রই চাকরির সন্ধানে বেরিয়ে পড়েন । কিন্তু যদি আপনি নির্দিষ্ট সময়ের আগে চাকরি করতে শুরু করে দেন তাহলে আপনি মাসিক মাইনের প্রতি অভ্যস্ত হয়ে উঠবেন যেটা আপনার জীবনে সবথেকে বড় ভুল হতে চলেছে । এর পাশাপাশি যারা ব্যবসায় মনোনিবেশ করেছে সে ক্ষেত্রে তাদের এক অবস্থান সঠিক সময়ে চাকরি এবং ব্যবসার দ্বারস্থ হন তার আগে নয়।

২) পরিবার এবং বন্ধু-বান্ধবদেরকে ক্যারিয়ারের পরে রাখা :- আমাদের মধ্যে এরকম অনেকেই আছেন যারা জীবনে ক্যারিয়ারকে বা নিজের কর্মরত জীবনকে সবথেকে বেশি প্রাধান্য দিয়ে থাকে । তারা কিন্তু মারাত্মক ভুল করতে চলেছে জীবনের । কারণ কাজের পাশাপাশি অর্থাৎ অর্থ উপার্জনের পাশাপাশি স্মৃতি বাড়ি তোলা অত্যন্ত জরুরী । আপনি যদি আপনার বন্ধু-বান্ধব এবং পরিবার থেকে মুখ ফিরিয়ে নেন তাহলে কিন্তু শেষ বয়সে আপনারা ভুল উপলব্ধি হবে যখন আপনার কাছে কোনো রকম কোনো কাজ থাকবে না।

৩. স্বাস্থ্যের প্রতি অবহেলা :- স্বাস্থ্যের অবস্থা ক্যারিয়ারের ক্ষেত্রে অন্যতম শর্ত। তিরিশের কোঠায় ধীর ও উদ্যমহীন হয়ে পড়লে ভবি’ষ্যৎ বলতে কিছু থাকবে না।

৪. সন্তান নেওয়ার সুযোগ না নেওয়া : সিইও বিষয়ক পরামর্শক অ্যালিসন হুইটমার জীবনের অভিজ্ঞতা থেকে বলেন,তিরিশে পৌঁছে সন্তান না নিয়ে নতুন ক্যারিয়ারের পেছনে ছোটা ভুল সিদ্ধান্ত। পরে সঙ্গী বা সঙ্গিনীর সঙ্গে বনিবনা না হওয়া বা ডি-ভোর্সের কারণে সবকিছু ন’ষ্ট হয়ে যায়।

৫) বাবা-মাকে সময় দেওয়া :- একটা নির্দিষ্ট বয়সের পর বাবা মারা অকর্ম হয়ে পড়ে । অর্থাৎ বয়সের সাথে সাথে কাজ করার ক্ষমতা ধীরে ধীরে লুপ্ত হতে থাকে সেই অবস্থাতে তাদের থেকে মুখ ফিরিয়ে নয় অবশ্যই তাদেরকে সময় দিন ।

৬) সঞ্চয় করা:- আমাদের অনেকে আছেন যারা কাজ করার পাশাপাশি বিপুল পরিমাণ অর্থ উপার্জন করে ঠিক কথা কিন্তু দিনের শেষে বা সপ্তাহের শেষে বিপুল পরিমাণ টাকা-পয়সা উড়িয়ে দেয় বিভিন্ন খাবারের জামা-কাপড় কেনা তে বা অন্য কোন নেশা জাতীয় দ্রব্যের উপর । কিন্তু আপনাকে মাথায় রাখতে হবে শেষ জীবনে আপনার জীবনকে স্বাচ্ছন্দ করে তুলবে এই টাকা পয়সার ।তাই কর্মরত অবস্থায় যতটা পারবেন সঞ্চয় করুন ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button