সা’পে কা-টা বালিকার দেহ প্রা’ণ ফি’রে পাবার আশায় কলার ভেলায় করে ভা-সানো হলো নদীতে, ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- হঠাৎ করেই শেষ হয়ে গেল ১০ বছরে পূজা মৃধার জীবন । সে নিজেও ভাবতে পারেনি যে ভাবে তাকে চ-লে যে-তে হবে পৃথিবী ছে-ড়ে । নিজের পরিবার-পরিজনকে ছেড়ে এই মৃ-ত্যু অ-স্বাভাবিক মৃ-ত্যু, অকালে মৃ-ত্যু । যে ১০ বছরের বালিকার চোখে ছিল একরাশ স্বপ্ন বড় হবার সেই বালিকাকে অগোচরে হারিয়ে যেতে হলো এই পৃথিবী থেকে । এই ঘটনা অত্যন্ত বে-দনাদায়ক ম-র্মান্তিক । কোথাও যেন এই সমস্ত ঘটনা কানে আসার পর আমাদের মনে হয় যে আমরা আজ অ-সহায় শুধুমাত্র। সামান্যটুকু উন্নত ব্যবস্থা থাকলে হয়তো বা ছাড়া যেতে পারতো এই বালিকার প্রাণকে । আজকে আপনাদের এই প্রতিবেদনে যার কথা বলতে এসেছি তার নাম ‘পূজা মৃধা’ ।

চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রী সে বয়স ১০ বছর ।তার বাড়ি হচ্ছে দক্ষিণ ২৪ পরগনা গোসাবা এলাকায় । প্রতিদিনকার মত নেই মেঝেতে বাবার সাথে শুয়েছিল পূজা । কিন্তু রাত সাড়ে দশটা নাগাদ তার মনে হয় যে তার পায়ে কিছু একটা কা-মড়েছে । কিছুক্ষণ যেতে না যেতেই সে তী-ব্র অনুভব করতে পারে যে সেখানে তার পায়ে কা-মড়েছে বি-ষাক্ত কোন সা-প । তারপর তার বাবা এলাকার লোকজন জড়ো করে এবং তাকে হা-সপা-তালে নিয়ে যাওয়া হয় । কিন্তু সেখানে রাস্তাঘাট পরিসেবা ভাল না থাকার জন্য হা-সপা-তাল নিয়ে যেতে অনেকটা দেরি হয়ে যায় । আর রাস্তাতে মৃ-ত্যু হ-য় সেই মেয়েটির ।

ভোট আছে ভোট যায় মানুষ আনন্দের সাথে সরকারকে নির্বাচন করে । এবং ক্ষ-মতায় নিয়ে আসে । কিন্তু সেই সমস্ত এলাকাতে থেকে যায় প্রতিশ্রুতি অ-ভাব । যে সমস্ত প্রতিশ্রুতি দিয়ে সরকার ক্ষ-মতায় আসে কখনো কখনো দেখা যায় সেই সমস্ত প্রতিশ্রুতি বিন্দুমাত্র পূরণ হয়না । আর ঠিক সেরকম একটি জায়গা হল দক্ষিণ ২৪ পরগনা গোসাবা । উপকূলবর্তী অঞ্চলে এখনো পর্যন্ত সা-পের উ-পদ্রব দেখা যায় । উন্নত চি-কিৎসা ব্য-বস্থা নেই সামনাসামনি কোন হাসপাতালে এমনকি নেই ভালো রাস্তা । যার জন্য অনেকবার অনেক ধরনের বি-পদের স-ম্মুখীন হতে হয়েছে সেখানকার স্থানীয় বাসিন্দাদের ।

অবশেষে পরিবারের সকলকে ছে-ড়ে চ-লে গেলেন পূজা মৃধা । গ্রামবাসীরা তাকে একটি কলার ভেলায় চাপিয়ে মশারী টাঙ্গিয়ে ফুল দিয়ে সাজিয়ে নদীর বু-কে ভা-সিয়ে দি-য়েছে । নদী তাকে যেখানে নিয়ে যাবে সেখানেই হবে ঠাই । এই ঘটনা সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রকাশ্যে আসার পর ট-নক ন-ড়েছে প্রশাসনের । আগামী দিনে হয়তো উন্নত হবে সে সমস্ত জায়গা । কিন্তু এভাবে হারিয়ে গেল পূজার মত আরও অনেকে । আগামী দিনে যাতে আর কেউ না এভাবে হারিয়ে যায় তার ব্যবস্থা এবং সচেতনতা আমাদেরকে রাখতে হবে ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button