দিদি নং ওয়ানে গিয়ে রাজের নামে একি বললেন শুভশ্রী, চোখে জল চলে এলো রচনারও, ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- আমরা প্রতিনিয়ত আমাদের নিজেদেরকে আনন্দ দেওয়ার চেষ্টা করে থাকি বিভিন্ন কাজের মাধ্যমে । তার পাশাপাশি কোথাও যেন এই বিনোদন জগত সেই কাজকে আরও সহজ করে তুলেছে । কারণ যখনই একঘেয়েমি জীবন হয়ে ওঠে তখনই আমরা সোশ্যাল মিডিয়া নইলে টিভির দ্বারস্থ হয় । বিভিন্ন ধরনের সিনেমা ধারাবাহিক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে আমরা পুনরায় আমাদের মনকে চাঙ্গা করার চেষ্টা করে থাকি । সেই সূত্রে অভিনয় জগতের সঙ্গে জড়িয়ে থাকা অভিনেতা-অভিনেত্রীরা আমাদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে ওঠে । তার পাশাপাশি মন জয় করে নেয় ।

ঠিক তেমনি অভিনয় জগতে একজন হাসিখুশি মিষ্টি অভিনেত্রী হলেন শুভশ্রী গাঙ্গুলী । অভিনয় জগতের সাথে দীর্ঘদিন ধরে যুক্ত থাকার পরে নিজের একটি রিয়েলিটি শো প্রতিস্থাপন করেছিলেন রচনা ব্যানার্জি । দীর্ঘ ১০ বছর ধরে সেই রিয়েলিটি শোয়ের সঞ্চালিকা হিসেবে কাজ করছেন তিনি । যার ফলে অভিনয় জগৎ থেকে সরে যাওয়ার পরও জনপ্রিয়তা বিন্দুমাত্র কমেনি । শুধুমাত্র জনপ্রিয়তা নয় তার শরীরে গ্ল্যামার কমেনি বিন্দুমাত্র ।এমনকি এই বয়সের টেক্কা দিতে পারেন প্রথমটি যে কোন অভিনেত্রী দের কে ।

সেদিন তার সেই শো অর্থাৎ দিদি নম্বর ওয়ান এ উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন অভিনেত্রীরা এবং তার সাথে সাথে উপস্থিত ছিলেন তাদের বান্ধবী ও মা । সেই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মধুমিতা সরকার শুভশ্রী গাঙ্গুলী তনুশ্রী সরকারকে সহ আরো অনেকে । প্রত্যেকে তারা পরিবারের সাথে এসেছিলেন । সেই অর্থে রচনা ব্যানার্জি শুভশ্রী গাঙ্গুলী সম্পর্কে তার মায়ের কাছে কিছু জানতে চান । তখন তার মা অর্থাৎ বিনা গাঙ্গুলী জানান শুভশ্রীর ছোটবেলার স্মৃতি ।

যা শুনে রীতিমতো হেসে লু-টোপু-টি খেতে শুরু করল সামনে বসে থাকা দর্শকরা । তার পাশাপাশি এ ঘটনা জানতে পেরে গেল সমস্ত নেট নাগরিকরা । ভিডিওটি দেখলে আপনি বুঝতে পারবেন যে শুভশ্রী গাঙ্গুলীর মা বলছেন যে ছোটবেলা থেকে অত্যন্ত দুরন্ত ছিলেন শুভশ্রী গাঙ্গুলী । কোন দিন বাড়িতে বসে খেলনা বাটি পুতুল খেলা করেননি তিনি। বরং পাড়ার সকল ছোট ছোট ছেলে মেয়েদের সাথে ক্রিকেট খেলেছেন ।

যাকে এক কথায় বলা যেতে পারে টম বয় ছিলেন এর জন্য অবশ্য শুভশ্রী অনেক ব-কাঝ-কাও খে-য়েছেন । তার পাশাপাশি এই সমস্ত পরিস্থিতি এবং পর্যায়ে পেরিয়ে এখন তিনি জনপ্রিয় অভিনেত্রী ও একজন দায়িত্ববান মা । তাই সবকিছু পাল্টেছে তার মধ্যে । এবং এই পাল্টানোর ঘটনাটি বেশ আকৃষ্ট করেছে তার মাকে ।এমনকি তিনি জানিয়েছেন যে এখন তো সময় কেটে যায় শুধুমাত্র তার নাতিকে নিয়ে ।মা এবং মেয়ের এই আদর মাখা মুহূর্তগুলো ক্যামেরাব-ন্দী হওয়ার পর ছড়িয়ে পড়েছে নেটদুনিয়া সর্বত্র এবং জনপ্রিয়তা পেয়েছে অনুরাগী মহলে ।

]

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button