রেশন কার্ড নিয়ে ফের নয়া বড়ো ঘোষণা রাজ্য সরকারের, কবে থেকে মিলবে এই পরিষেবা, জানালো নবান্ন!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- আমাদের দেশে রেশন ব্যবস্থা এক আলাদা যুগান্তরকারী সমাজের সৃষ্টি করেছে । এমনটা বলা যেতে পারে । যাতে কোনদিন কারো খাবারের কোনোরকম অ-সুবিধা না হয় তাই এই ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে । প্রসঙ্গত উল্লেখ্য এ রেশন ব্যবস্থা আজকাল নতুন নয় । আলাউদ্দিন খিলজী সময় থেকে বাজারদর নিয়ন্ত্রণ রাখার জন্য এই ধরনের ব্যবস্থা অবলম্বন করা হয়েছিল । এবং যুগের পর যুগ ধরে সে ব্যবস্থা চলে আসছে ।অবশ্যই তার মধ্যে কিছু উন্নতি হয়েছে ।

কিন্তু এবার দেশের সমস্ত নাগরিকদের যাতে একই ভাবে একই মাত্রায় একই নিয়মে রেশন দেওয়া যায় তার ব্যবস্থা করেছে সুপ্রিম কোর্ট। আমরা দেখেছি যে আগের বছর ল-কডা-উন এর সময় রেশনের নিয়ে দু-র্নীতি ঘটে ছিল । রাজ্য দো-ষারো-প করছিল কেন্দ্র কে কেন্দ্র দোষারোপ করছিল রাজ্যকে ।।আর এই টা-নাপো-ড়েনের মধ্যে যাঁ-তাক-লে প-ড়ে গি-য়েছিল সাধারন মানুষেরা । যারা রেশন থেকে ব-ঞ্চিত হচ্ছিল ।এবার সেই বার পুনরাবৃত্তি না ঘটে তাই আদালতে মামলা দায়ের করেছিলেন তিন সমাজকর্মী হর্ষ মান্ডের,

অঞ্জলি ভরদ্বাজ ও জগদীপ চোকার । এবং সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি তত্ত্বাবধানে এমনটা নির্দেশ দেওয়া হয় যে আগামী ৩১ শে জুলাই এর মধ্যে রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল গু-লিতে এক দেশ এক রেশন প্রকল্পের আওতায় নিয়ে আসতে হবে সমস্ত নাগরিকদেরকে । রাজ্যের পাশাপাশি কেন্দ্র তৎপর এই কাজগুলি তাড়াতাড়ি সম্পন্ন করে ফেলতে। তার পাশাপাশি বিভিন্ন পরিযায়ী শ্রমিকদের জন্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার ।

রাজ্যগুলি কেন্দ্রীয় সরকারের সাহায্য নিয়ে সমন্বয় পরিযায়ী শ্রমিকদের উন্নয়নমূলক কাজে যুক্ত থাকার জন্য আহবান জানিয়েছেন বিভিন্ন জায়গায় কমিউনিটি কিচেন গড়ে তোলার পরামর্শ দিয়েছেন । তার পাশাপাশি প্রতিটি পরিযায়ী শ্রমিক যাতে বিনামূল্যে রেশন পায় সে ব্যাপারে নজর রাখতে বলা হয়েছে । তবে আগামী ৩১ শে জুলাই এর মধ্যে এক দেশ এবং এক রেশন কার্ডের কাজ সম্পন্ন করার জন্য ক-ড়া নির্দেশ দেয়া হয়েছে সুপ্রিম কোর্টে তরফ থেকে ।সেই মত এগিয়ে চলছে কাজ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button