এই মুহূর্তের বড় খবর, হাওড়া থেকে এবার ‘ক্লোন ট্রেন’ চালানোর সিদ্ধান্ত পূর্ব রেলের, রইল বিস্তারিত!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- ট্রেন চলবে কবে থেকে চলবে ট্রেন এই ধরনের প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে প্রতিটি মানুষের মনে । কিন্তু এর উত্তর এখনও জানা যায়নি। কারণ ইতিমধ্যে পূর্ব রেলের কর্মকর্তারা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কাছে অনুমতি চেয়ে চিঠি পাঠাল এখনো পর্যন্ত কোনো অনুমতি মেলেনি। বরং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরাসরি সাংবাদিক বৈঠকের মাধ্যমে জানিয়ে দিয়েছিলেন এই মুহূর্তে কোন রকম ভাবে লোকাল ট্রেন চালানো সম্ভব নয় আর তারপর থেকে বিক্ষোভের আকার ধারণ করেছে ।

আমরা দেখেছি হাওড়া এবং শিয়ালদা ডিভিশনের সাধারণ নিত্যযাত্রী মানুষেরা কিভাবে অফিস যাবে সেই ব্যাপারে চিন্তিত হয়ে পড়েছিলেন । যার ফলে বিভিন্ন স্টেশন চত্বরে তারা বি-ক্ষোভ করে। এমনকি পু-লিশের সাথে ধ্ব-স্তাধ্ব-স্তি তে লে-গে পরে । এই ঘটনা পূর্ব রেলওয়ের কর্মকর্তারা মুখ্যমন্ত্রীকে জানিয়েছিলেন কিন্তু তিনি সম্পূর্ণ রকম ভাবে এই বিষয়টি অগ্রাহ্য করে গেছেন । অপরদিকে পূর্ব রেলে ব্যা-পক ক্ষ-য়ক্ষ-তির স-ম্মুখীন হতে হচ্ছে এতদিন ট্রেন বন্ধ থাকার দরুন কিন্তু পূর্ব রেল কর্মকর্তারা বারবার জানাচ্ছে যে সমস্ত বিধি-নিষেধ মেনে ট্রেন চালাতে প্রস্তুত ।

তারা শুধু রাজ্য সরকারের কাছ থেকে সবুজ সঙ্কেত নেই আবার রাজ্যের বুকে চলবে সমস্ত ধরনের ট্রেন। আমরা দেখেছি সাধারণ নিত্যযাত্রীদের যাতে আর কোন অসুবিধা না হয় তার জন্য পূর্ব রেল বাড়িয়েছে হাওড়া এবং শিয়ালদা ডিভিশনের অতিরিক্ত আরো স্টাফ স্পেশাল ট্রেন । যার ফলে অফিসে যাতায়াতে কোনো রকম কোনো অসুবিধা হবে না সাধারণ নিত্যযাত্রীদের । কিন্তু এবার ক্লোন ট্রেন চালানোর পরিষেবা নিল ভারতীয় পূর্ব রেলওয়ের । সাধারণ মানুষের মনে প্রশ্ন আসতে শুরু করেছে ক্লোন ট্রেন কি?

ক্লোন শব্দের অর্থ হলো একই রকম জিনিস কিন্তু আসল নয় অর্থাৎ কোন জিনিসকে যদি হুবহু নকল করা যায় । তাহলে সেটিকে ক্লোন বলা হয় । ঠিক এবার ট্রেনের ক্লোন পদ্ধতি চালু করতে চলেছে পূর্ব রেল । পূর্ব রেল সূত্রে খবর, কলকাতায় বসবাসকারী বিহারের বাসিন্দাদের মধ্যে টিকিটের মা-রাত্ম-ক চাহিদা লক্ষ্য করা যাচ্ছে। যে কারণে আপাতত বিহারের একটি রুটেই ‘ক্লোন ট্রেন’ চালানো হচ্ছে। রেল সূত্রে জানানো হয়েছে, এই মুহূর্তে হাওড়া-ভাগলপুর রুটে এই ধরনের ক্লোন ট্রেন চালানো হবে। আগামী ৫ জুলাই চালানো হবে এই ট্রেন।

একই সঙ্গে বিশেষভাবে সক্ষম যাত্রীদের জন্য দূরন্ত এক্সপ্রেসে বিশেষ কোচের ব্যবস্থা, নির্দিষ্ট বগি করে দেওয়া হয়েছে রেলের পক্ষ থেকে। এবার সেই ক্লোন তত্ত্বকে কাজে লাগিয়েই এই ক্লোন ট্রেন চালানো হবে। এ ক্ষেত্রে আসল যে ট্রেনের ক্লোন করে আরেকটি ট্রেন চালানো হবে, তার নম্বর, রুট, নির্ঘণ্ট সব একই থাকবে। কিন্তু সেটা আসল ট্রেন হবে না। অতিমারিকালে বিশেষ কিছু রুটে যাত্রীদের চাহিদার কথা মাথা রেখে আগেও ভারতীয় রেলের অন্যান্য শাখা ক্লোন ট্রেন চালিয়েছে। তবে এই প্রথম তা চলবে পূর্ব রেলে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button