সোনু সুদের বাড়িতে সাহায্য চাইতে গেলেন গরীব যুবক-যুবতী, তাকে যা বললেন সোনু সুদ, ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- কখনো কখনো দু-র্যোগ মোকাবিলা করতে ভগবান মরতে নেমে আসে না নিজের শরীর নয় বরং দূত হিসেবে পাঠায় মানুষকে যেমন ধরুন এই বলিউড ইন্ডাস্ট্রি জনপ্রিয় নায়ক ‘সনু সুদ’ নামটি নতুন করে আর কিছু বলার অপেক্ষা রাখে না আগের বছর ল-কডা-উন এর সময় থেকে এখনো অব্দি প্রায় কয়েক লক্ষ মানুষকে অর্থাৎ পরিযায়ী শ্রমিক কে বাড়ি ফিরেছেন তিনি তার পাশাপাশি এখনো পর্যন্ত কোন সাহায্য করে ফেলেছে গরীব অ-সহায় নিরীহ মানুষদের কে তাই ভগবানও থেকে কোন অংশে কম নয় এমনটা মনে করে অনেকেই।

পরিযায়ী শ্রমিক দের ঘরে পৌঁছানোর দায়িত্ব থেকে শুরু করে তাদের খাবারের ব্যবস্থা এবং যাবতীয় ব্যবস্থা সেই মুহূর্তে একা হাতে করেছিলেন বলিউডের অভিনেতা সোনু সুদ। এবার শুধু তার ফল পাওয়ার সময়। তার এই কাজের জন্য কিছুদিন আগে ইউনাইটেড নেশনস ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রাম একটি অ্যাওয়ার্ডের আয়োজন করেছিলো গত ২৯ সেপ্টেম্বর । একটি ভার্চুয়াল সেরিমনির মাধ্যমে এই অনুষ্ঠান পালিত হয়। আর সেই অনুষ্ঠানে “এসডিজি স্পেশাল হিউম্যানিটারিয়ান অ্যাকশন অ্যাওয়ার্ড ” দেওয়া হয়েছিল সোনু সুদকে।

সাধারণত খলনায়কের চরিত্রে অভিনয় করা এই অভিনেতা বাস্তব জীবনে আসলে নায়কের পরিচয় দিয়েছেন। এর পাশাপাশি সেই সময় তিনি একটি টোল ফ্রি নাম্বার এবং নিজের ইমেইল আইডি দিয়েছিলেন যার মাধ্যমে মানুষজন তাদের সমস্যার কথা সোনু সুদ কে সরাসরি জানাতে পারতেন। এবং সেই মতন মানুষদের কাছে পৌঁছে যেতেন এই মানুষ রূপী দেবতা সোনু সুদ ।তবে ফের আরো একবার খবরের শিরোনামে উঠে এলেন সোনু সুদ ।

ফের আবার অসহায়ের ত্রাতা রূপে অবতীর্ণ হলেন সনু সুদ। কিছু গরীব মানুষেরা সাহায্যের জন্য পৌঁছে গিয়েছিলেন সনু সুদ এর বাড়ির দরজায় । বিশ্বাস করুন তাদেরকে বিন্দুমাত্র অপমান বা কোনো রকম কোনো তাচ্ছিল্য করেননি তিনি । বরং মনোযোগ দিয়েছেন তাদের সমস্যার কথা । তার পাশাপাশি তিনি সেই সমস্ত মানুষকে আশ্বস্ত করেছেন যে তাদের বাড়ি পৌঁছে দেওয়ার দায়িত্ব তার নিজের শুধুমাত্র আশ্বস্ত করেছে তেমন কিন্তু নয় । তার পাশাপাশি তৎক্ষণাৎ তিনি নিজের কাজে লেগে পড়েন । তার এই দেবতা রুপি আচরণ মানুষের মনকে আকৃষ্ট করেছে । শুধুমাত্র ভারত বর্ষ নয় ভারতবর্ষের বাইরে ও শিশুদের প্রশংসায় পঞ্চমুখ সকলে ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button